অপরাধ
মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০ ৫ কার্ত্তিক ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

অভিনব পন্থায় সিরিয়ালি ধর্ষণ, গ্রেপ্তার ধর্ষক

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিতঃ সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২০ , ১০:৪৫ পূর্বাহ্ন
অভিনব পন্থায় ধর্ষণ

অভিনব এক পন্থায় ৩ তরুণীকে ধর্ষণ ও আরেক তরুণীকে যৌন হয়রানি করেছে এক তরুণ। এখানেও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক। ফেসবুকের সহায়তায় তিন তরুণী ধর্ষক তরুণের খপ্পরে পড়ে। ঘটনা ঘটেছে রাজধানী ঢাকার ভাটারা থানা এলাকায়। পুলিশ এই ঘটনায় ওই এলাকা থেকে দেওয়ান রসুল হৃদয়(২৫) নামের তরুণকে গ্রেপ্তারও করেছে। আর এমন ঘটনায় মামলাও হয়েছে ভাটারা থানায়। মামলায় নির্যাতনের শিকার চার তরুণীর দেয়া জবানবন্দি গ্রহণ করেছে পুলিশ।

আর পড়ুন : কাজের ছেলেকে বিয়ে করতে যে কাণ্ড ঘটালো মেয়ে!

পুলিশ জানায়, তথাকথিত ফেসবুক বান্ধবীর প্রস্তাবে গত ১২ সেপ্টেম্বর গাজীপুরে পুলপার্টিতে যান ভুক্তভোগী এক তরুণী। সেখানেই সিরিয়াল ধর্ষক দেওয়ান রসুল হৃদয়ের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেন ফেসবুক বান্ধবী। এরপর ১৪ সেপ্টেম্বর হৃদয় ভাটারায় নিজের বাড়িতে নিয়ে আসেন দুজনকে। ১৬ সেপ্টেম্বর মেয়েটিকে ধর্ষণ করে হৃদয়। ২০ সেপ্টেম্বর আরও দুই নারী একই সহযোগীর মাধ্যমে তার বাসায় আসে। এরপর তাদেরও পালাক্রমে ধর্ষণ করে হৃদয়।

ঢাকা মহানগর পুলিশের বাড্ডা জোনের সহকারী কমিশনার এলিন চৌধুরী বলেন, মামলার এজাহারে বলা হয়েছে- নিজের চেষ্টায় কিছু করবেন বলে বাবা-মাকে না জানিয়ে গত ১০ সেপ্টেম্বর বাসা থেকে বের হয়ে রাজধানীর গুলশান-বাড্ডা রিং রোডে অবস্থানরত বান্ধবীর কাছে আসেন প্রথম বাদী। পরে দুই বান্ধবী একসঙ্গে থাকবেন বলে মনস্থির করেন।

এরই মাঝে ফেসবুকের মাধ্যমে তাদের পরিচিত আরেক বান্ধবী পরদিন ১১ সেপ্টেম্বর গাজীপুরে পুলপার্টিতে যেতে দ্বিতীয় বাদীকে আমন্ত্রণ জানান। সেখানে যাওয়ার পর ওই বান্ধবী অভিযুক্ত হৃদয়ের সঙ্গে দুজনের পরিচয় করিয়ে দেন। তাদের আশ্বস্তও করেন, প্রয়োজন হলে হৃদয় তাদের থাকার ব্যবস্থাও করে দিতে পারবে।

এরপর হৃদয় তাদের ভাটারার বাসার নিচতলায় একটি কক্ষে থাকার ব্যবস্থা করে দেন। দুদিন পর ১৬ সেপ্টেম্বর মামলার প্রথম বাদীর সঙ্গে কথা বলার জন্য হৃদয় তার তৃতীয় তলার বাসায় ডেকে নিয়ে যান। সেখানে একপর্যায়ে ভয়ভীতি দেখিয়ে ধর্ষণ করেন। ধর্ষণের কথা কাউকে না বলার জন্য হুমকি দেন।

তিনি আরও বলেন, হৃদয় তার স্ত্রীর করা মামলায় দেড় বছর জেলে ছিলেন। সে সময় তাদের বিয়েবিচ্ছেদ ঘটে। এ বিষয়ে তদন্ত প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে।

ওএন/জি

  • 32
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    32
    Shares
  •  
    32
    Shares
  • 32
  •  
  •  
  •  
  •